ফ্যাশন

গরমে ত্বকের যত্নঃ

বৈশাখ মাস আসার আগেই কিন্তু আমাদের প্রকৃতি বৈশাখের আগমন জানান দিচ্ছে। প্রখর রোদ এবং তাপে আবহাওয়া বদল হচ্ছে। তাই এখন থেকেই ত্বকের বাড়তি যত্ন প্রয়োজন। চলুন তাহলে জেনে নিই গরমে কিভাবে স্কিন হেলদি রাখবেনঃ 

১। সানস্ক্রিন এর ব্যবহারঃ 

গরমে দিনের বেলা ঘর থেকে বের হলে অথবা রান্না করার সময় সানস্ক্রিন অবশ্যই ব্যবহার করতে হবে। সানস্ক্রিন আপনার ত্বককে সূর্যের ক্ষতিকর রশ্মি এবং সানবার্ন থেকে রক্ষা করবে। অনেকেরই খুব অল্প বয়সে মুখে কালো ছোপ ছোপ দাগ অথবা মেছতা পরে যায়। এর অন্যতম কারণ হল সানস্ক্রিন ব্যবহার না করা। আবার রান্না করার সময়ও সানস্ক্রিন দিতে হবে কেননা চুলার তাপেও স্কিনের ক্ষতি হয়। তাই বাহিরে যাওয়ার আগে এবং রান্নার সময় মুখ ভালভাবে ফেইসওয়াশ দিয়ে ভালোভাবে ধুয়ে, টোনার এবং ময়েশচারাইজার এর পর একটি ভালো মানের সানস্ক্রিন ব্যবহার করতে হবে। বাজারে বিভিন্ন ব্র্যান্ড এর সানস্ক্রিন রয়েছে। আপনার স্কিনের ধরণ অনুযায়ী সানস্ক্রিন নির্বাচন করতে হবে। 

২। ত্বক পরিষ্কার রাখতে ফেইশওয়াশঃ 

গরম কালে ত্বক পরিষ্কার রাখা অনেক জরুরী বিশেষ করে যাদের অয়েলি স্কিন। অয়েলি স্কিন হলে মুখ তেলতেলে হয়ে যায় এবং এ থেকে ব্রণ হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। তাই, ত্বক বেশিক্ষণ তৈলাক্ত হতে দেওয়া যাবে না। একটি ভালো মানের  অয়েল ফ্রি ফেইসওয়াশ দিয়ে মুখ ভালোভাবে ধুয়ে নিতে হবে। ময়েশচারাইজার ব্যবহার করতে ভুল্বেন না কিন্তু। 

৩। টোনারঃ 

এ গরমে স্কিনকে হাইড্রেটেড রাখতে টোনার ব্যবহার করতে হবে। শুষ্ক কিংবা তৈলাক্ত যে কোন স্কিনের জন্যই টোনার খুবই উপকারি। এটি স্কিনের পিএইচ ব্যালেন্স ঠিক রাখতে সহায়তা করে। আপনার স্কিন টাইপ অনুযায়ী টোনার বাছাই করে নিতে পারেন। এছাড়াও বিভিন্ন প্রাকৃতিক উপাদান যেমনঃ শশার রস, গোলাপ জল টোনার হিসেবে ব্যবহার করা যায়। 

৪। লিপবামঃ 

অনেকেই মনে করেন যে, শুধুমাত্র শীতকালেই লিপবাম ব্যবহার করা হয়, গরমে তার প্রয়োজন নেই। এটা সম্পূর্ণই ভুল ধারণা। গরমে ঠোঁটকে রোদের ক্ষতিকর রশ্মি থেকে বাঁচাতে এবং হাইড্রেট রাখতে লিপবাম ব্যবহার করতে হবে। 

৫। হেলদি লাইফ লিড করাঃ 

সর্বোপরি স্কিন সুন্দর রাখতে হেলদি লাইফ ফলো করতে হবে। গরমে প্রচুর পানি পান করতে হবে। এছাড়া নিয়মত মৌসুমি ফলমূল খেতে হবে এবং দৈনিক ৮ ঘণ্টা ঘুমাতে হবে। রাত জাগার বদঅভ্যাস ত্যাগ করতে হবে। 

LEAVE A RESPONSE

Your email address will not be published. Required fields are marked *