ফ্যাশন

নখ ভাঙ্গা কিভাবে প্রতিরোধ করবেন?

আপনার হাতের সৌন্দর্য বৃদ্ধির অন্যতম উপায় নখ। হাতের নখ শুধু আপনার হাতের সৌন্দর্যই বাড়ায় না এটি আপনার রূচির প্রকাশক হিসেবেও কাজ করে। একটু বড় নখ সুন্দর একটি শেপে কেটে রাখলে তা দেখতে যে কারোই ভাল লাগে। আর বর্তমানে বিভিন্ন ধরণের নেইল পেইন্ট, নেইল আর্ট ও হরেক রকমের নেইল পলিশ আছে যার দ্বারা খুব সহজেই আপনি আপনার নখকে করে তুলতে পারেন আরো সুন্দর ও আকর্ষণীয়।

তবে নখ রাখার প্রধান সমস্যা হচ্ছে নখ ভাঙ্গা। বেশ কিছুদিন যাবৎ সুন্দর করে নখ রাখার পর যদি হঠাৎ আপনার একটি নখ ভেঙে যায় তবে আপনাকে অনেকটা বাধ্য হয়েই অন্য আঙুলের নখগুলোও কেটে ফেলতে হবে। কেননা একটা নখ নেই আর অন্য চারটা বড় এটা দেখতে মোটেও শোভনীয় নয়।

 

 

নখ ভাঙার এই সমস্যা প্রতিরোধের সহজ কিছু উপায় আছে। যেমন –

গ্লাভস পড়ুন : আপনি যখন ঘরের কাজ করবেন অর্থাৎ রান্না-বান্না, তরকারি কাটা, ধোয়ার কাজ ইত্যাদি। তাহলে আপনার নখের উপর চাপ কম পড়বে।

ম্যাসাজ করুন : বাদাম তেল নখের পুষ্টি বাড়ানোর সাথে সাথে নখ দ্রুত বড় করতে যেমন সাহায্য করে তেমনি নখ ভাঙাও প্রতিরোধ করে। তাই প্রতিরাতে ঘুমানোর আগে নখে বাদাম তেল ম্যাসাজ করুন। তবে আপনি চাইলে পেট্রোলিয়াম জেলি, ক্যাস্টার ওয়েল অথবা অলিভ ওয়েলও ব্যবহার করতে পারেন।

অতিরিক্ত রাসায়নিক পদার্থ ব্যবহার থেকে বিরত থাকুন : ঘন ঘন নেইল পলিশ, নেইল পলিশ রিমুভার ব্যবহার করা থেকে বিরত থাকুন। অতিরিক্ত রাসায়নিক পদার্থ ব্যবহার করলে নখের আর্দ্রতা কমে যায় যা নখ ভাঙার অন্যতম কারণ। নখে ট্রান্সপারেন্ট নেইল পলিশ ব্যবহার না করাই ভাল।

নখ সাইজে রাখুন : নখ সবসময় একটি নির্দিষ্ট সাইজে রাখুন। বেশি বড় নখ খুব সহজে ভেঙে যায়।

ভিটামিন ই যুক্ত খাবার খান : আপনার খাদ্য তালিকায় ভিটামিন ই যুক্ত খাবার রাখুন। ভিটামিন ই নখের জন্য খুবই ভাল। তবে ভিটামিন এ, সি, ডিও নখের সুস্বাস্থ্য বজায় রাখতে সাহায্য করে। আপনি চাইলে ডাক্তারের পরামর্শ নিয়ে ভিটামিন ই ক্যাপসুলও খেতে পারেন। এতে নখ সহজে ভাঙ্গবে না।

 

 

নখ কামড়াবেন না : নখ কামড়ালে শুধু নখের ক্ষতিই হয় না সাথে সাথে চামড়া ও মাড়িরও ক্ষতি হয়। আর এটি নখ ভাঙার অন্যতম কারণ।

লবণ পানিতে নখ ভেজান : সপ্তাহে অন্তত একদিন লবণ পানিতে প্রায় ২০ মিনিট নখ ভিজিয়ে রাখুন। এরপর তা ব্রাশ দিয়ে ঘষে ভাল করে মুছে নিন। হাতে গ্লিসারিন বা ভেসলিন ম্যাসাজ করুন। এতে করে আপনার নখের ভঙ্গুরতা কমবে।

সামান্য চেষ্টা আর একটু সচেতনতাই আপনার এই সৌন্দর্যকে ধরে রাখতে পারে। মেয়েদের হাতের সৌন্দর্য এক অন্যরকম সৌন্দর্য। তাই এ ব্যাপারে সচেতন হন।

 

 

Please follow and like us:

LEAVE A RESPONSE

Your email address will not be published. Required fields are marked *